ব্যাকরণ

‘কর্’ ধাতুর রূপ

কর্ ধাতুও বাংলায় বহুল ব্যবহৃত একটি ধাতু। আমরা অনেকেই কর্ ধাতুর ক্রিয়াপদ লিখতে গিয়ে ভুল করে থাকি। চলুন জেনে নিই কর্ ধাতুর চলিত রূপগুলো।

ক. ব্যক্তি নিজে কাজ করলে সাধারণত নিচের রূপগুলো বসে :
করতাম, করেছিলাম, করছিলাম, করলাম, করেছি, করছি, করি, করব, করতে, করেছিলে, করছিলে, করলে, করেছ, করছ, করো, করবে, কোরো, করতি (স), করেছিলি, করছিলি, করলি, করেছিস, করছিস, করিস, করবি, কর, করত, করেছিল, করছিল, করল, করেছে, করছে, করে, করবে, করুক, করতেন, করেছিলেন, করছিলেন, করলেন, করেছেন, করছেন, করেন, করবেন, করুন, করে।
প্রয়োগ :
১. আমি একসময় খুব খেলাধুলো করতাম।
২. আমি তাকে সাহায্য করেছিলাম।
৩. আমি তখন কাজ করছিলাম।
৪. আমি মাত্র কাজটা শেষ করলাম।
৫. আমি আমার কর্তব্য পালন করেছি।
৬. আমি এখন পড়াশোনা করছি।
৭. আমি এখন চাকরি করি।
৮. ঠিক আছে, আমি তোমার কাজটা করব।
৯. আমাকে যদি একটু সাহায্য করতে তাহলে ভালো হতো।
১০. তুমিই তো আমার সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করেছিলে।
১১. রাত ১১টা পর্যন্ত তুমি বাজারে কী করছিলে?
১২. তুমি কেন এমন কাজ করলে!
১৩. দুপুরের খাওয়া শেষ করেছ?
১৪. তুমি এখন কী করছ?
১৫. আমি চাই কাজটা তুমিই করো।
১৬. তুমি এমন করবে সেটা আমি ভাবতেও পারিনি।
১৭. তিনমাসের মধ্যে কাজটি শেষ কোরো।
১৮. আমাকে অন্তত একবার স্মরণ করতি (স)।
১৯. তুই তাকে কেন কল করেছিলি?
২০. এতক্ষণ বাইরে কী করছিলি?
২১. তুই এমন কাজ কীভাবে করলি!
২২. আমার কাজটা শেষ করেছিস?
২৩. তুই কি এখন গুরুত্বপূর্ণ কোনো কাজ করছিস?
২৪. আমাকে এই কাজে সহায়তা করিস।
২৫. তুই এত খারাপ কাজ করবি সেটা আমার ধারণার বাইরে ছিল।
২৬. এখনই খাওয়া শেষ কর।
২৭. তুহিন আগে রেলওয়েতে চাকরি করত।
২৮. নাজিম আমাকে অপমানিত করেছিল।
২৯. সে তখনও আমার সঙ্গে তর্ক করছিল।
৩০. সে মাত্র পড়া শুরু করল ।
৩১. টিটু সরকারি চাকরিতে আবেদন করেছে।
৩২. সে রাগে গজগজ করছে।
৩৩. জলিল খুব ভালো কাজ করে।
৩৪. তুমি কবে ভালোভাবে কাজ করবে?
৩৫. সে তার মতো কাজ করুক।
৩৬. আমার নানা আমাকে খুব স্নেহ করতেন।
৩৭. এলাকার ইউনিয়ন পরিষদ সদস্যই রাস্তাটা মেরামত করতে টাকা বরাদ্দ করেছিলেন।
৩৮. তিনি আমাকে চাকরি থেকে বরখাস্ত করলেন।
৩৯. আপনি নাশতা করেছেন?
৪০. তিনি এখন কাজ করছেন।
৪১. আপনি দ্রুত কাজটা শেষ করেন/করুন।
৪২. বাড়িতে গিয়ে আমাকে কল করবেন।
৪৩. সে এখন কেরানির চাকরি করে।

খ. ব্যক্তি অন্যের দ্বারা কাজ করালে সাধারণত নিচের রূপগুলো বসে :
করাতাম, করিয়েছিলাম, করাচ্ছিলাম, করালাম, করিয়েছি, করাচ্ছি, করাই, করাব, করাতে, করিয়েছিলে, করাচ্ছিলে, করালে, করিয়েছ, করাচ্ছ, করাও, করাবে, কোরিয়ো, করাতি (স), করিয়েছিলি, করাচ্ছিলি, করালি, করিয়েছিস, করাচ্ছিস, করাস, করাবি, করা, করাতো, করিয়েছিল, করাচ্ছিল, করালো, করিয়েছে, করাচ্ছে, করায়, করাবে, করাক, করাতেন, করিয়েছিলেন, করাচ্ছিলেন, করালেন, করিয়েছেন, করাচ্ছেন, করাবেন, করান, করিয়ে।
প্রয়োগ :
১. আগে জানলে তোমাকে দিয়েই কাজটা করাতাম।
২. আমি সুব্রতকে দিয়ে আমার ঘরের রং করিয়েছিলাম।
৩. তোমাকে অপেক্ষা করাচ্ছিলাম কারণ আমি তখন খুব ব্যস্ত ছিলাম।
৪. শুধু শুধু তোমাকে কষ্ট করালাম।
৫. তমা কনস্ট্রাকশনকে দিয়ে আমার নতুন বাড়ি করিয়েছি।
৬. আমি খুব শীঘ্রই কাজটা করাচ্ছি।
৭. আমি এখন তাকে দিয়ে আমার বাড়ির কাজ করাই না।
৮. অনেকদিন ধরে ভাবছি যে রাস্তাটা পাকা করাব।
৯. তোমার ভাইকে দিয়েই তো কাজটা করাতে পারতে।
১০. তুমি রফিককে দিয়ে কাজটা করিয়েছিলে?
১১. তাকে অযথা কেন দেরি করাচ্ছিলে?
১২. তুমি কেন তাকে দিয়ে এই অপরাধ করালে?
১৩. তুমি নাকি তাকে দিয়ে আমার বিরুদ্ধে নালিশ করিয়েছ?
১৪. আমাকে শুধু শুধু অপেক্ষা করাচ্ছ কেন?
১৫. আমি বলছি না তুমি আমাকে দিয়ে কাজ করাও।
১৬. তুমি আমাকে আর কত দেরি করাবে?
১৭. তুমি জিসানকে দিয়ে কাজটা কোরিয়ো।
১৮. তাকে দিয়ে আমাকে একটিবার কল করাতি (স)।
১৯. দাসীকে দিয়ে ঘরটা পরিষ্কার করিয়েছিলি?
২০. ওকে দিয়ে কেন আমাকে হেনস্তা করাচ্ছিলি?
২১. আমার বিরুদ্ধে এমন নালিশ কীভাবে করালি?
২২. তোর বউয়ের অস্ত্রোপচার করিয়েছিস?
২৩. আমাকে কেন দেরি করাচ্ছিস?
২৪. কাজ যেহেতু করাবি সেহেতু আমার ভাইকে দিয়েই করাস।
২৫. এসব কাজ করা সহজ নয়।
২৬. সে আমাকে দিয়ে তার ব্যক্তিগত কাজ করাতো।
২৭. সে-ই এসব কাজ করিয়েছিল।
২৮. সে যখন কাজ করাচ্ছিল তখন আমি হঠাৎ হাজির হয়েছিলাম।
২৯. সে কেন আমাকে দিয়ে এমন কাজ করালো তা আমার আজও অজানা।
৩০. সে আমাকে ৩ ঘণ্টা অপেক্ষা করিয়েছে।
৩১. সে আমাকে দিয়ে প্রতিনিয়ত খারাপ কাজ করাচ্ছে।
৩২. সে যদি ফারুককে দিয়ে কাজ করায় তো করাক।
৩৩. সে আমাকে এতক্ষণ অপেক্ষা করাবে তা আমি বুঝতে পারিনি।
৩৪. মহারাজ গোপালকে দিয়ে যাবতীয় কঠিন কাজ করাতেন।
৩৫. সম্রাট শাহজাহান তাজমহল তৈরি করিয়েছিলেন।
৩৬. তিনি হেলালকে দিয়ে কাজটা করাচ্ছিলেন।
৩৭. বৈকুণ্ঠ শ্বশুরকে দিয়ে বিনোদের নামে মামলা করালেন।
৩৮. তিনি আমাকে দিয়ে এই কঠিন কাজটি করিয়েছেন।
৩৯. তাকে দিয়ে এত কষ্ট করাচ্ছেন কেন?
৪০. আপনি নেহালকে দিয়ে কাজটা করাবেন তো করান, আমার এতে কোনো আপত্তি নেই।
৪১. বাবা বেঁচে থাকতে সবকিছু ঠিকঠাক করিয়ে নাও।

সম্পূর্ণ দেখুন

ফারহান সাদিক শাহীন

পরিচালক, প্রমিত বাংলা চর্চা | শিক্ষার্থী (স্নাতক), ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

মন্তব্য করুন

Back to top button
Close