বানান

শোনা/শুনা, বোঝা/বুঝা, লেখা/লিখা

শোনা, বোঝা, লেখা—শোনা, বোঝা ও লেখা হচ্ছে বিশেষ্য হিসেবে চলিত শব্দ।
চলিত বাক্যে শোনা, বোঝা, লেখা ব্যবহৃত হবে।
যেমন—
১. প্রদীপ পড়াশোনায় বেশ ভালো।
২. তার পক্ষে এসব বোঝা সম্ভব নয়।
৩. তার লেখায় মাধুর্য আছে।

শুনা, বুঝা, লিখা— শুনা, বুঝা ও লিখা হচ্ছে বিশেষ্য হিসেবে সাধু শব্দ।
সাধু বাক্যে শুনা, বুঝা, লিখা ব্যবহৃত হবে।
যেমন—
১. ভদ্রলোকের পক্ষে এহেন অশ্রাব্য বক্তব্য শুনা সম্ভব নহে।
২. অপুর দ্বারা হৈমন্তীকে বুঝা বেশ কষ্টসাধ্য ছিল।
৩. তাহার হস্তলিখা পরিপাট্য-বিবর্জিত।

তবে চলিত শব্দের ক্রিয়াপদে এসব শব্দের ভিন্নতা দেখা যেতে পারে।
যেমন—
১. সে আমাকে বুঝতে পারল না।
২. সবাই রসায়ন বোঝে না।
৩. তোমার ভাইয়ের থেকে পড়া বুঝে নিয়ো।
৪. তোমার এসব কথা আমি বুঝি না।
৫. পাগলিটা কানে শুনতে পায় না।
৬. সে কানে শোনে না।
৭. শিক্ষক তাকে কড়া কথা শুনিয়ে দিলেন।
৮. তার কথা আমি মন্ত্রমুগ্ধের মতো শুনি।
৯. বাবার থেকে কথাটা শুনে এসো।
১০. আবিদ রচনা লিখছে।
১১. সে ভালো লেখে।
১২. আমি কবিতা লিখি।
১৩. আমি একটা গল্প লিখেছি।

দ্রষ্টব্য—বোঝা-এর আরেক অর্থ বড়ো গাঁটরি।

সম্পূর্ণ দেখুন

ফারহান সাদিক শাহীন

পরিচালক, প্রমিত বাংলা চর্চা (প্রবাচ), শিক্ষার্থী (স্নাতক), ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

Leave a Reply

Your email address will not be published.

সম্পূর্ণ দেখুন
Close
Back to top button
Close